বুধবার, নভেম্বর ২৩, ২০২২

বস্তুনিষ্ঠ সংবাদ সবার আগে

ডজন মামলার আসামী ইসলামপুরের বদি ডাকাত গ্রেফতার

প্রতিনিধি, ঈদগাঁও:

কক্সবাজারের ঈদগাঁও উপজেলার ইসলামপুরের শীর্ষ ডাকাত বদিউল আলম প্রকাশ বদি ডাকাতকে আবারে আটক করেছে ঈদগাঁও থানা পুলিশ। শুক্রবার (৬ মে) তাকে গ্রেফতার করা হয়। বদিউল আলম প্রকাশ বদি ডাকাত ইসলামপুর ইউনিয়নের পূর্ব নাপিত খালি এলাকার মৃত দলিলুর রহমানের ছেলে।

থানা সূত্রে জানা যায়, বদি ডাকাত ইসলামপুরে ত্রাস। তার বিরুদ্ধে কক্সবাজার সদর মডেল থানায় ১২ টি মামলা রয়েছে। এরমধ্যে ডাকাতি, অস্ত্র ব্যবসা, ছিনতাই, ধর্ষণ, অপহরণ, বনদস্যুতা, হত্যা মামলা রয়েছে।

জানা গেছে, পূর্ব নাপিতখালীর জসিম উদ্দীন নামের এক দরিদ্র রিক্সা চালকের গৃহপালিত ছাগল ধরে নিয়ে জবাই করে ভোজনবিলাস করে। পরে ছাগল উদ্ধারের বিষয়ে বদি ডাকাতের বাড়িতে গেলে জসিমকে দা দিয়ে কুপিয়ে হত্যার চেষ্টা করে। প্রাণে রক্ষা পেয়ে জসিম উদ্দীন দ্রুত ঘটনাস্থল ত্যাগ করে ঈদগাঁও থানার আশ্রয় নেন।

থানায় লিখিত অভিযোগ দায়েরের পর ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোঃ আবদুল হালিমের নির্দেশে এ,এস,আই ইব্রাহিম হোসেন সঙ্গীয় ফোর্স নিয়ে বাড়ির আশপাশে রূদ্ধশ্বাস অভিযান চালিয়ে তাকে গ্রেফতার করে। ওই সময় তার কাছ থেকে দেশীয় তৈরী একটি লম্বা দা, চোরাইকৃত ছাগলের মাংস উদ্ধার করে পুলিশ।

ওসি মোঃ আবদুল হালিম জানান,′′গ্রেফতারকৃত আসামী বদি ডাকাতকে দীর্ঘদিন ধরে খুঁজছিল পুলিশ।গ্রেফতার এড়াতে বারবার আত্মগোপনে চলে যেত। শুক্রবার গোপন সংবাদের ভিত্তিতে তাকে গ্রেফতার করতে সক্ষম হয় পুলিশ।

ওসি আরও জানান, তার বিরুদ্ধে কক্সবাজার সদর মডেল থানায় ১২ টি মামলা রয়েছে, তৎমধ্যে ৪টি যথাক্রমে ৪৩(৬)১৬,৩৮(৬)১৪,৩৭(৬)১৪,২৫(১১)২০ ইং মামলার গ্রেফতারী পরোয়ানা জারি ছিল। ৪৩(৬)১৬ সালের মামলাটি হত্যা মামলা বলে জানা যায়। তার বিরুদ্ধে পূর্বেকার ওয়ারেন্ট মামলা মূলে আদালতে সোপর্দ করা হবে বলে জানান ওসি।
এদিকে তার গ্রেফতারের সংবাদ পেয়ে স্থানীয়দের মধ্যে স্বস্তি ফিরে এসেছে।
এলাকাবাসী জানায়, ডাকাত বদি আলম এক সময়ের শীর্ষ ডাকাত, তার নামে এক ডজন মামলা রয়েছে। এলাকা ভিত্তিক একটি কিশোর গ্যাং গড়ে তুুুুলে মাদক ব্যবসা, ছিনতাই, চুরি, অপহরণ, ভয়ভীতি প্রদর্শন করে জমি দখল, চাঁদাবাজি করে আসছিল। নিরীহ মানুষের ঘরবাড়ি তৈরি করতে চাইলে চাঁদাদাবী করত বদি ডাকাত।

তার সেকেন্ড ইন কমান্ড হিসেবে রয়েছে তার ভাগিনা স্থানীয় বাদশা মিয়ার ছেলে মুজাহিদ নামের এক যুবক। তার ইশারায় সেখানে একটি কিশোর গ্যাং নানান অপরাধ কর্মকান্ড করে আসছে বলে অভিযোগ রয়েছে।
ঈদগাঁও থানার অফিসার ইনচার্জ মোঃ আবদুল হালিম বলেন, এলাকায় কোনো কিশোর গ্যাং অপরাধী থাকতে পারবে না, সে যতই বড় সন্ত্রাসী হোক তাকে আইনের আওতায় আনা হবে।

সর্বশেষ খবর

কক্সবাজার উন্নয়ন কর্তৃপক্ষের চেয়ারম্যান কে সম্মাননা প্রদান করলো ঢাকাস্থ কক্সবাজার সমিতি

বার্তা পরিবেশক কক্সবাজার উন্নয়ন কর্তৃপক্ষের নবনিযুক্ত চেয়ারম্যান অবসরপ্রাপ্ত কমোডর মোহাম্মদ নুরুল আবছার কে সম্মাননা প্রদান করেছে কক্সবাজার সমিতি ঢাকা। সমিতির পক্ষ থেকে সভাপতি হেলালুদ্দীন আহমেদ কমোডর...

প্রধানমন্ত্রীর জনসভা সফল করতে কুতুবদিয়া আ.লীগের প্রস্তুতি সভা

কুতুবদিয়া প্রতিনিধি : আগামী ৭ডিসেম্বর কক্সবাজারে বাংলাদেশ আওয়ামীলীগের সভানেত্রী ও প্রধানমন্ত্রী জনসভা সফল করার লক্ষ্যে কুতুবদিয়া উপজেলা আ.লীগের উদ্যোগে এক প্রস্তুতি সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে। মঙ্গলবার সন্ধ্যায়...

মাত্র পাঁচ মিনিটেই তছনছ হট ফেভারিট আর্জেন্টিনা, সাফল্যের নেপথ্যে কে?

আসিফুজ্জামান সাজিন: সৌদি আরবের কাছে ২-১ গোলে হেরে প্রথম ম্যাচেই বড় অঘটনের শিকার আর্জেন্টিনা। লিওনেল মেসির হাতে যে একটি বিশ্বকাপ শিরোপা সবাই দেখতে চায়, সেটা...

খুটাখালীতে পান ব্যবসায়ীকে পিটিয়ে হত্যার অভিযোগ

শাহিদ মোস্তফা শাহিদ, ঈদগাঁও: কক্সবাজারের চকরিয়া উপজেলার খুটাখালী ইউনিয়নে বনে ঝাড়ু ফুল সংগ্রহ করতে গিয়ে বন খেকোদের হামলায় আবদু রশিদ (৫০) নামের এক পান ব্যবসায়ী...