সোমবার, সেপ্টেম্বর ২৬, ২০২২

বস্তুনিষ্ঠ সংবাদ সবার আগে

আলোচিত জোড়া খুন: ১৬ দিনেও গ্যাং লিডার আশু আলীকে খুঁজে পায়নি পুলিশ: মাঠে নেমেছে র‌্যাবও।

আজিম নিহাদ:

গত ৩১ জানুয়ারি দক্ষিণ সাহিত্যিকাপল্লী সমাজ কমিটির নেতা সাইফুল ইসলাম সাবুকে গুলি করে খুন করে আশু আলী ও তার বাহিনী। প্রকাশ্যে ছেলেকে খুন করা হলেও এখনো প্রধান আসামী আশু আলী আটক না হওয়ায় বিচার নিয়ে হতাশ তার মা।

জানা গেছে, ২০২০ সালে সাবমেরিন এলাকায় বোনের বাসা থেকে ডেকে নিয়ে বাবুর্চি হেলালকে হত্যা করে আশু আলী। এরপর আশু আলী আবার আলোচনায় আসে গত ৩১ মে শহরের দক্ষিণ রুমালিয়ারছড়া সিকদারবাজার এলাকায় অপর সন্ত্রাসী গ্রুপের সাথে সংঘর্ষে জোড়া খুনের ঘটনায়। যার নেতৃত্বে গত তিন বছরে ৫টি হত্যাকাণ্ড এবং ডজনাধিক হাত-পা কেটে নেওয়ার ঘটনা ঘটলেও এখন পর্যন্ত সে ধরাছোঁয়ার বাইরে। প্রতিটি খুনের ঘটনার পর কিছুদিন গা ঢাকা দিলেও পরে আবারও সক্রিয় হয়ে উঠে ভয়ংকর এই কিশোর গ্যাং লিডার।

গত ৩১ মে জোড়া খুনের ঘটনার পর রুমালিয়ারছড়া সমিতিবাজার এলাকায় এক আয়োজনে সদর থানা পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মুনির উল গিয়াস ঘোষণা দিয়েছিলেন আশু আলীকে গ্রেপ্তার করা পুলিশের জন্য ফরজে আইন হয়ে গেছে। তাকে গ্রেপ্তারে সব ধরণের কৌশল তারা অবলম্বন করছেন। কিন্তু সে ঘোষণার ১০ দিন পার হলেও এখনো আশু আলীর নাগাল পায়নি পুলিশ।

এদিকে আশু আলী বাহিনী, সাদ্দাম বাহিনী, হাসনাত বাহিনী, সদ্য খুন হওয়া রায়হান বাহিনী শহরের পাহাড়ি ও দুর্গম এলাকা রুমালিয়ারছড়ার সমিতি বাজার, সিকদার বাজার, কারাগারের পেছনের এলাকা, পল্লানিয়া কাটা, আমতলী পাহাড়ি এলাকা, সাহিত্যিকা পল্লী, বিজিবি ক্যাম্প এলাকা ও আলীর জাহান গরুর হালদা এলাকায় অবস্থান করে থাকে।

স্থানীয় সমাজ কমিরি নেতা রিয়াজ মোরশেদের দাবী, এসব এলাকায় আশু আলী বাহিনীর সক্রিয় সোর্স রয়েছে। আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর সদস্যরা অভিযানে গেলেই তারা আগে থেকে খবর পেয়ে যায়। এরফলে তাদের গ্রেপ্তার করা সম্ভব হয় না।

তিনি আরো দাবী করেন, জমি দখল, ইয়াবা কারবারসহ নানা অপরাধ নিয়ন্ত্রণের জন্য পাহাড়ী এলাকায় প্রভাবশালী চক্র গড়ে তুলে এসব সন্ত্রাসী বাহিনী। যাদের হাতে প্রাণ হারায় নিরীহ লোকজন। অনেকে বরণ করে পঙ্গুত্ব।

আশু আলী ওরফে আশরাফ আলীর সাথে গোলাগুলিতে নিহত সন্ত্রাসী রায়হান ও তার বাহিনীর মাদক কারবারে বাঁধা দেওয়ায় নির্মমভাবে খুন করা হয়েছিল দক্ষিণ রুমালিয়ারছড়ার মেধাবী ছাত্র তানভীরকে। তানভীর হত্যায় জড়িতরা এখন প্রকাশ্যে। তানভীরের মায়ের আক্ষেপ সম্প্রতি রায়হান হত্যায় তানভীরের অন্য ভাইদের জড়িয়ে ফাঁসানোর চেষ্টা করছে সন্ত্রাসীরা।

র‌্যাব-১৫ এর অধিনায়ক উইং কমান্ডার আজিম আহমেদ জানিয়েছেন, শীর্ষ সন্ত্রাসী আশু আলীকে গ্রেপ্তারে পুলিশের পাশাপাশি মাঠে নেমেছে র‌্যাবও। তিনি জানিয়েছেন, আশু আলী এবং তার বাহিনীকে ধরতে তারা বিভিন্ন কৌশলে অভিযান চালাচ্ছে। আশু আলীর পাশাপাশি কিশোর গ্যাং এর অন্যান্য সদস্যদেরও গ্রেপ্তার করা হবে বলে জানিয়েছেন তিনি।

আলোচিত জোড়া খুনের ঘটনায় এখন পর্যন্ত মইন উদ্দিন নামে একজনকে আটক করা হয়েছে। পুলিশ জানিয়েছে, মইন ওই ঘটনায় জড়িত। কিন্তু ভয়ংকর সন্ত্রাসী আশু আলী গ্রেপ্তার না হওয়ায় এখনো উদ্বেগ-উৎকণ্ঠায় দুর্গম এলাকায় বসবাসকারী মানুষ। পাহাড়ী এলাকায় শান্তি ফেরাতে তাকে দ্রুত গ্রেপ্তারের দাবী স্থানীয়দের।

সর্বশেষ খবর

কানাডা যাচ্ছেন মুহিবুল্লাহর পরিবারের আরও ১৪ জন!

টিটিএন ডেস্ক: কক্সবাজারের শরণার্থী ক্যাম্পে নৃশংস হত্যাকাণ্ডের শিকার মুহিবুল্লাহর পরিবারের আরও ১৪ সদস্য কানাডার উদ্দেশে ক্যাম্প ত্যাগ করেছেন। এই নিয়ে দ্বিতীয় দফায় তার পরিবারের সদস্যরা...

উন্নয়নে বাংলাদেশ এখন বিশ্বে রোল মডেল—মেয়র মুজিবুর রহমান

নিজস্ব প্রতিবেদক: জমকালো আয়োজনে কক্সবাজার সাউন্ড এণ্ড লাইটিং সিস্টেম ওনার্স এসোসিয়েশন (কসলা) এর নবগঠিত কমিটির মিলনমেলা ও অভিষেক অনুষ্ঠান সম্পন্ন হয়েছে। সোমবার (২৬ সেপ্টেম্বর) জারা...

নাইক্ষ্যংছড়ি উপজেলা স্বেচ্ছাসেবক লীগের ত্রি-বার্ষিক সম্মেলনে সভাপতি-সাত্তার সম্পাদক-চোচুমং

হাফিজুল ইসলাম চৌধুরী: বান্দরবানের নাইক্ষ্যংছড়ি উপজেলা স্বেচ্ছাসেবক লীগের ত্রি-বার্ষিক সম্মেলন ও কাউন্সিল সম্পন্ন হয়েছে। এতে পুনরায় সভাপতি নির্বাচিত হয়েছেন আব্দুস সাত্তার। সাধারণ সম্পাদক নির্বাচিত হয়েছেন...

কক্সবাজারে এসএসসির অষ্টম দিনে অনুপস্থিত ৩৬০ বহিষ্কার ১ ছাত্রী

শাহেদ হোছাইন মুবিন : চলতি বছরের এসএসসি ও সমমানের পরীক্ষার রসায়ন (তত্ত্বীয়),পৌরনীতি ও নাগরিকতা,ব্যবসায় উদ্যোগ পরীক্ষা শেষ হয়েছে। অষ্টম দিনেই অনুপস্থিত ছিলো ৩৬০ জন শিক্ষার্থী।...